“পৃথিবী কাঁপিয়েছিলো যে দশটি বই”

পৃথিবী কাঁপিয়েছিলো যে দশটি বই

শেয়ারঃ রনি ভুঁইয়া

 

 

১০) “Malleus Maleficarum” by Heinrich Kramer and Jacob Sprenge(1486)
ইংলিশে যার নাম “The hammer of Witchcraft”, অর্থাৎ ‘ডাইনীর হাতুরি’।
তখনকার যুগে ডাইনী জিনিষটা মানুষ প্রবলভাবে বিশ্বাস করতো এবং এই বইটা ছিলো মুলত ডাইনী শিকারিদের জন্য একটা গাইড। এটা এসেছিল প্রোটেস্ট্যান্ট সংস্কার থেকে। এই বইয়ে বলা হয়েছিলো কিভাবে ‘ডাইনীবিদ্যা’ ধ্বংস করা যায় এবং দেশ থেকে তাদের বিতাড়িত করা যায়। ১৪৮৭ এবং ১৫২০ এর মধ্যে এই বইটির ২০টি সংস্করন বের হয়। ১৫৭৪ থেকে ১৬৬৯ এ আবার ১৬টি সংস্করন করা হয়। হাতে হাতে বইটি শতাব্দীর পর শতাব্দী ধরে চলে আসছে।

) “Coming of Age in Samoa” by Margaret Mead. (1928)
‘মার্গারেট মিড’ ছিলেন একজন আমেরিকান সাংস্কৃতিক বিশেষজ্ঞ। তিনি ‘সামোয়া’-তে গিয়েছিলেন ১৯২০-এ আমেরিকানদের যৌনতার উপর রিপোর্ট করতে। কিছু মেয়ে মার্গারেটকে তাদের বন্য যৌনতার অভিজ্ঞতার কথা বলে। মার্গারেট সেগুলো সত্যি ধরে নেয় যদিও সেগুলো ছিল বানানো কথা। একটি মেয়ে স্বীকার করে নেয় যে, তারা আসলে তার সাথে মজা করে এগুলো বলেছিলো। এর ফলে আমেরিকার নৃ-বিজ্ঞানিদের উপর ব্যাপারটা অনেক প্রভাব ফেলে।

) “The Prince” by Niccolò Machiavelli.(1532)
এই বইটি ‘ডমিন্যান্ট ক্যাথলিক’ এবং ‘স্কলাসটিক ডকট্রাইন’-দের মধ্যে সরাসরি দ্বন্দ্ব নিয়ে লেখা একটি বই। অনেকেই বইটাকে দর্শন তথা আধুনিক রাজনৈতিক দর্শনের লেখা প্রথম কাজ বলে মনে করেন। এই বইটি পড়ে যারা অনুপ্রাণিত হয়েছিলো,তারা হলেন- স্টালিন, হিটলার, মুসোলিনি, এবং নেপোলিয়ন।

) “Adolf Hitler” by Mein Kampf. (1925)
এই বইটি হিটলার এর উপর লেখা। বলা হয়, বইটি প্রকাশ হবার পর একটি কপিও বিক্রি হয়নি,কিন্তু যখনি হিটলার আবার ক্ষমতায় এলেন বইটির ১০ মিলিয়ন কপি বিক্রি হয়ে যায়। বইটিতে হিটলারের বর্ণবাদসহ আরও অনেক বিতর্কমূলক বিষয়ের সন্নিবেশ ঘটে।

) “The Pivot of Civilization” by Margaret Sanger.(1922)
‘মার্গারেট স্যান্জার’কে আধুনিক গর্ভনিরোধের জননী বলা হয়ে থাকে। তিনি তার বইয়ে সু-প্রজনন বিদ্যার সন্নিবেশ ঘটান। তিনি এই বইয়ে বলেন কিভাবে সুস্থ প্রজনন করে মানব জাতির আরও উচ্চতর স্থানে পৌঁছানো সম্ভব।

) “Democracy and Education” by John Dewey.(1916)
এই বইটি মুলত প্রথাগত স্কুল শিক্ষার বিরুদ্ধে লেখা একটি বই। ‘জন’ যেটা বলতে চাইছিলেন তা হলো নৈতিক শিক্ষাই বড় শিক্ষা। এই বইটিকে ‘শাস্ত্রীয় শিক্ষার বিরোধী’ একটি বই ও বলা যায়।

) “Baby and Childcare” by Benjamin Spock.(1946)
এটি সেই ঘাতক বই যার কারনে অনেক শিশুর মৃত্যু ঘটে। এই বইয়ে লেখক এমন কিছু উপদেশ দিয়েছিলেন যা ফলো করে অনেক মা না জেনে তার বাচ্চাটিকে মৃত্যুর মুখে ঠেলে দেন। তিনি বিশ্বাস করতেন শিশুদের উচিত পেটের উপর ভর দিয়ে শোওয়া, এবং তিনি আরও বলতেন, শিশুরা সোজা হয়ে ঘুমালে তাদের পিঠে প্রেশার পরতে পারে এবং বমি বা শ্বাস কষ্ট হতে পারে। যার ফলে শিশুটি মারা যেতে পারে। খুব জলদি কিছু বিজ্ঞানিরা তার এসব ভুল ধারনা ধরতে পারে। কিন্তু ততদিনে প্রায় ৫০,০০০ এর কাছাকাছি শিশু মারা যায় তার ভুল পরামর্শের কারনে।

) “The Protocols of the Elders of Zion” (1903)
এই বইটির লেখক কে,এই ব্যাপারে সঠিক কিছু জানা যায় না তবে সম্ভাব্যদের মধ্যে ‘পিটর রাকভস্কি’ বা ‘মরিস জলি’ এর নাম চলে আসে। ১৯২০ সালে আমেরিকায় এই বইটির ৫ লক্ষ কপি বিক্রি হয়। এ বইটিতে ধাপ্পাবাজি থাকা সত্বেও ব্যাপক বিস্তার লাভ করে বইটি। জার্মানি বিরোধী ইহুদি প্রচেষ্টায় এবং রাশিয়ান বিপ্লবের পর ইহুদীদের বিরুদ্ধে ঘৃণা ও যে সহিংসতার সাধন করা হয়. তা এই বইয়ে বলা হয়।

) “The Manifesto of the Communist Party” by Karl marx and Friedrich Engels.(1848)
এই বইটি মানব জাতির ইতিহাসের সবচেয়ে বর্বর কিছু শাসনকে অনুপ্রাণিত করেছে। মার্কসবাদিরা এই বইটি থেকে অবর্ণনীয় কিছু শিক্ষা বের করে আনে। জমি দখল, ভারি কর, নিজস্ব মালিকানা বাতিল আরও অনেক ধরনের বাম পন্থি কিছু ব্যাপার বইটিতে উল্লেখ করা হয়।

) “Darwin’s Black Box” by Michael Behe.(1996)
অনেকেই এই বইটিকে হাতিয়ার হিসেবে ব্যাবহার করে থাকেন যে ‘বিবর্তনবাদ একটি ভুয়া থিওরি’। ‘মাইকেল’ নিজে মৌলবাদী নন এবং বাইবেলের ব্যাখ্যায়ও বিশ্বাসী নন। বিজ্ঞানিরা এই বইটিকে প্রত্যাখ্যাত করে। বিবর্তনবাদ অযৌক্তিক_ এই কথাই এই বইটির মূল বক্তব্য।

 

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s